কীটনাশকে ভেজাল প্রসঙ্গ

ফসল উত্‍পাদনের অন্যতম উপাদান কীটনাশক৷ ফসলের সুরক্ষায় কীটনাশক ব্যবহার অতীব জরুরি একটি উপাদান৷ বাজার থেকে কৃষক কীটনাশক কিনে ফসলের জমিতে প্রয়োগ করে এই আশায় যে, পোকার আক্রমণ থেকে ফসল রক্ষা পাবে৷ কিন্তু সেই কীটনাশকে যদি কাজ না হয় তাহলে আর উপায় থাকেনা কৃষকের৷ এমনিতে কীটনাশকের উচ্চ মূল্যে কৃষকের নাভিশ্বাস ওঠার পালা৷ তার উপর ভেজাল কীটনাশকে দিশেহারা কৃষক৷ এ যেন ” মরার উপর খারার গা”৷
পত্রিকান্তরে খবরে প্রকাশ, কৃষি জমিতে ব্যবহৃত হচ্ছে নিম্নমানের নকল কীটনাশক৷ চট্রগ্রামের চকরিয়া উপজেলার বিভিন্ন বাজারে সয়লাব হয়েছে এমন নকল কীটনাশকে৷ মাজরা পোকা দমনে এমন ওষুধ ব্যবহার করে প্রতারিত হয়েছে হাজারো কৃষক৷ তাছাড়া নকল ওষুধ নিয়ন্ত্রণে প্রশাসনের কোনো তত্‍পরতা না থাকায় আরো বেশি বেপরোয়া হয়ে উঠেছে চক্রটি৷ ফলে চলতি মৌসুমে আমনের লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত না হওয়ার আশঙ্কা করছেন কৃষকরা৷ দীর্ঘদিন ধরে কৃষকরা ধানক্ষেতে মাজরা পোকা নিধন করতে সিনজেনটা বাংলাদেশ লিমিটেডের ‘ভিরতাকো’ ব্যবহার করে আসছিল৷ ভিরতাকো ব্যবহার করে কৃষকরা সুফলও পেয়েছে৷ কিন্তু হঠাত্‍ করে বাজারে সয়লাব হয়ে গেছে ভেজাল ভিরতাকো কীটনাশকটি৷ চট্রগ্রামের বিভিন্ন এলাকাতে সিনজেনটা কোম্পানির ভিরতাকোর পরিবর্তে নকল ভিরতাকো বিক্রি হচ্ছে দেদারছে৷ তাছাড়া কৃষকরা হলোগ্রাম, লোগো ও প্যাকেট একই রকম হওয়ায় আসল বা নকল কীটনাশক কোনটি সহজে চিনতে পারছে না৷ দামে সস্তা হওয়ায় অনেকেই কিনে নিচ্ছে৷ ব্যবহার করার পর মাজরা পোকা নিয়ন্ত্রণতো দূরের কথা ওল্টো চিটা হয়ে যাচ্ছে ধান৷ এতে কৃষকরা চরম ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে৷ প্রতিবছরের মতো এবারো ধানচাষ করেছেন পুরুত্যাখালীর কৃষক আনোয়ার হোসেন৷ তিনি চলতি মৌসুমে ২ একর জমিতে ধানচাষ করেছেন৷ প্রত্যেক বছর প্রতিকানি জমিতে তার ১ হাজার ৮০ কেজি ধান উত্‍পাদন হতো৷ লগি্নকৃত টাকাও ফিরে পেতেন৷ কিন্তু এবারে নকল ভিরতাকো ব্যবহার করায় পথে বসার উপক্রম৷
সিনজেনটা বাংলাদেশ লিমিটেডের এর কর্মকর্তারা সিনজেনটার সুনাম ও অবৈধভাবে মুনাফা অজর্নের লক্ষ্যে একটি চক্র এহেন অপকর্মের সাথে জড়িত বলে জানান৷ এমতাবস্থায়, ভেজাল কীটনাশক রোধে প্রশাসনের নজরদারী বাড়ানো সহ এসব অসাধু চক্র যারা নকল ওষুধ তৈরি, বিক্রি করছে তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া জরুরি বলে আমরা মনে করি৷
২. আগামী ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস৷ ১৯৭১ সালের মহান স্বাধীনতা সংগ্রামে যাঁরা দেশের জন্য রক্ত দিয়েছেন,আত্মত্যাগ করেছেন এবং আমাদের জন্য স্বাধীন বাংলাদেশ উপহার দিয়েছেন তাদের সবার জন্য আমাদের বিনম্র শ্রদ্ধা৷ কৃষিবার্তা পরিবারের পক্ষ থেকে সকল পাঠক, গ্রাহক, লেখক ও শুভানুধ্যায়িদের প্রতি রইল মহান বিজয় দিবসের শুভেচ্ছা৷

FacebookTwitterGoogle GmailEmailYahoo MailYahoo MessengerShare

One Comment on “কীটনাশকে ভেজাল প্রসঙ্গ”

Leave a Reply to Kbd. Lutfor rahman Cancel reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *