গরমের শরবত

গ্রীষ্মের তাপদাহে জীবন যখন ওষ্ঠাগত। এসময় শরীর থেকে বের হয়ে যায় প্রচুর পরিমাণে লবন ও পানি। অল্পতেই শরীর নিস্তেজ হয়ে পড়ে। শরীরের এই পানি শূণ্যতার জন্য চাই প্রচুর বিশুদ্ধ পানি আর পুষ্টিকর ফলমূলের র্নিযাশ। যা নিমিষেই পুষ্টি ঘাটতি মিটিয়ে দেহ মনে আনে প্রশান্তি। তাই এসব নিয়ে এবারের আয়োজন সাজিয়েছেন সালমা হুদা।

উপকরণঃ

১. ঠান্ডা তরমুজের রস ৪ কাপ

২. পুদিনা পাতার রস ৪ টেবিল চামচ

৩. লেবুর রস ২ টেবিল চামচ

৪. চিনির সিরাপ ৪ টেবিল চামচ (প্রয়োজনমতো)

৫. বিট লবণ সিকি চা চামচ

৬. বরফ কিউব প্রয়োজনমতো

চিনির সিরাপঃ

১. পানি ২ কাপ

২. চিনি ২ কাপ

পানি ও চিনি জ্বাল দিয়ে মাঝারি ঘন করে নামালেই চিনির সিরাপ তৈরি হয়ে যাবে। যেকোন পানীয় তৈরিতে এই সিরাপ ব্যবহার করা যাবে।

প্রণালীঃ

সব কয়টি উপকরণ একসঙ্গে ভালোভাবে মেশালেই তরমুজের ঠান্ডা তৈরি হয়ে যাবে। গ্লাসে ঢেলে বরফ কিউব দিয়ে পরিবেশন করুন।

উপকরণঃ কনডেন্স মিল্ক আধা টিন, পানি আধা কাপ, চিনি ৩ টেবিল চামচ, গোলাপ জল ১ টেবিল চামচ, লেবুর রস ২ টেবিল চামচ, বরফ কুচি।

প্রণালীঃ কনডেন্স মিল্কের সাথে পানি মিশিয়ে তাতে চিনি ও গোলাপ জল মিশিয়ে রেফ্রিজারেটরে রাখুন। তৈরি হয়ে গেল ঠান্ডা মিঠ।

উপকরণঃ আনারস ১ টি (বড় সাইজের), ব্রাউন সুগার আধা কাপ,চিনি সস ২ টেবিল চামচ,বরফ কুচি পরিমাণ মতো।

প্রণালীঃ আনারস কুচিয়ে ব্লেন্ডারে  নিয়ে তার মধ্যে ব্্রাউন সুগার ও পানি দিয়ে ব্লেন্ড করুন। কিছু আনারস টুকরো করে পাত্রে ঢেলে বরফ কুচি দিয়ে পরিবেশন করুন।

উপকরণঃ পাকা আমের টুকরা ১ কাপ,গুঁড়া দুধ আধা কাপ, চিনি স্বাদমতো,ট্যাং ১ টেবিল চামচ, ভ্যানিলা আইসক্রিম ৪ স্কুপ, ঠান্ডা পানি ২ কাপ, বরফ কুচি সিকি কাপ।

প্রণালীঃ সব উপকরণ এক সাথে ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে ঠান্ডা ঠান্ডা পরিবেশন করতে হবে।

FacebookTwitterGoogle GmailEmailYahoo MailYahoo MessengerShare